ALL SCHEME

Sukanya Samriddhi Scheme : কন্যা সন্তান হলেই সরকার দিচ্ছে 10 লাখ টাকা

 Sukanya Samriddhi Scheme : কন্যা সন্তান হলেই সরকার দিচ্ছে 10 লাখ টাকা

Sukanya Samriddhi Scheme : কন্যা সন্তান হলেই সরকার দিচ্ছে 10 লাখ টাকা
কন্যা সন্তান হলেই সরকার দিচ্ছে 10 লাখ টাকা

Sarkari Chakri

নমস্কার বন্ধুরা –

কেন্দ্র সরকারের তরফে জানা গিয়েছে যে আপনার বাড়িতে যদি কন্যা সন্তান থাকে তাহলে আপনি পেয়ে যেতে পারেন এককালীন ১০ লক্ষ টাকা। কিন্তু তার জন্য কন্যা সন্তানের 10 বছর বয়স হওয়ার আগে কেন্দ্রের সুকন্যা সমৃদ্ধি যোজনার নাম নথিভুক্ত করতে হবে। এই যোজনা মূলত করা হয়েছে সদ্যজাত কন্যা সন্তানের ভবিষ্যতের কথা মাথায় রেখে কেন্দ্র সরকারের তরফে। সুকন্যা সমৃদ্ধ যোজনায় কিছু নিয়মের বদল হলো কেন্দ্রীয় সরকারের দ্বারা যার ফলে পাওয়া যাবে কিছু বাড়তি সুবিধা। কোন পরিবারে কন্যা সন্তান জন্মানোর পর তার বিয়ে, উচ্চশিক্ষা ইত্যাদি নানা বিষয়ে পরিবারের মা-বাবার মাথা  উদ্বিগ্ন হয়ে যায়। সেই দুরাবস্থার কথা মাথায় রেখেই কেন্দ্রীয় সরকার ২০১৫ সালে “Beti Bachao, Beti Padhao” কর্মসূচির দ্বারা এই যোজনা চালু করেছিল।

কোথায় গিয়ে খুলতে হবে সুকন্যা সমৃদ্ধি একাউন্ট:-

ভারতীয় সবচেয়ে বড় রাষ্ট্রায়ত্ত ব্যাংক State Bank of India (SBI), Post Office এবং HDFC ব্যাংকের অধীনে এই সুকন্যা সমৃদ্ধি যোজনা অ্যাকাউন্ট খোলা হচ্ছে। এগুলো ছাড়াও আরো কিছু কিছু ব্যাংকে একাউন্ট খোলার সুবিধা দেওয়া হয়েছে।

Sukanya Samriddhi Scheme এর অধীনে টাকা রাখলে বর্তমানে 8% হারে চলতি অর্থ বর্ষ থেকে অর্থাৎ গত এপ্রিল মাস থেকে এই পরিমাণ দেওয়া হচ্ছে যার ফলে কন্যা সন্তানের বাবা-মা চিন্তা কিছুটা হলেও কমেছে।










Sukanya Samriddhi Scheme অ্যাকাউন্ট খোলার জন্য প্রয়োজনীয় ডকুমেন্টস:-

যেহেতু সুকন্যা সমৃদ্ধি যোজনা অ্যাকাউন্ট কন্যা সন্তানের 1 বছর বয়স থেকে 10 বছর বয়স অবধি বানানো যায় তার জন্য এখানে প্রয়োজনে ডকুমেন্ট হিসেবে বেশি কিছু চাওয়া হয় না। এখানে প্রয়োজনে ডকুমেন্টস বলতে, 

1. কন্যা শিশুর জন্ম পরিচয় পত্র হিসেবে Birth Certificate এবং

2. অভিভাবকের পরিচয় পত্র হিসেবে আধার কার্ড বা ভোটার কার্ড বা প্যান কার্ড, ইত্যাদি।

Sukanya Samriddhi Yojona সম্পর্কিত কিছু গুরুত্বপূর্ণ কথা:-

1. এই যোজনার আওতায় একাউন্ট খুলতে গেলে কন্যার বয়স 1 বছর থেকে 10 বছরের মধ্যে হতে হবে। এর থেকে বেশি বয়স হয়ে গেলে কিন্তু কোন মতেই অ্যাকাউন্ট খোলা যাবে না।

2. এই যোজনার আওতায় শুধুমাত্র কোন দম্পতির প্রথম দুইটি কন্যায় নাম নথিভুক্ত করাতে পারে। কিন্তু কোন দম্পতির যদি প্রথমে একটি কন্যা ও তারপরে দ্বিতীয়বার দুটি জমজ কন্যা হয় তাহলে ওই তিনটি সন্তানই এই প্রকল্পের আওতায় নাম নথিভুক্ত করিয়ে এর লাভ উঠাতে পারে।

3. এই প্রকল্পে মাসিক 250 টাকা থেকে শুরু করে 12,500 টাকা পর্যন্ত কেউ মনে করলে জমাতে পারে। সন্তানের বয়স যতদিন না 15 বছর হচ্ছে ততদিন এই প্রকল্পের প্রিমিয়াম দিতে হয়। এবং এই প্রকল্পের আওতায় সমস্ত টাকা সন্তানের বয়স 21 বছর হলে তোলা সম্ভব। কিন্তু 18 বছর হলে শিক্ষার জন্য কিছু টাকা তুলে নেওয়া যায়।

4. এই প্রকল্পের আওতায় বর্তমানে 8% হারে সুদ পাওয়া যায়।

5. এই সুকন্যা সমৃদ্ধি একাউন্ট খোলার জন্য সন্তানের জন্ম সার্টিফিকেটের পাশাপাশি অভিভাবকের KYC করতে হয়। এছাড়াও প্রথম মাসে প্রিমিয়াম হিসেবে 1000 টাকা জমা করতে হয়।

6. যদি প্রকল্পের মাঝে অভিভাবকের মৃত্যু হয় তবে যে পরিমাণ প্রিমিয়াম বাকি থাকবে সেটা কেন্দ্র সরকারের তরফ থেকে দিয়ে দেওয়া হয় এবং প্রকল্পের সুবিধা আগের মতই পাওয়া যায়।

7. যদি কোন কারনে প্রকল্প চলাকালীন কন্যা সন্তানের মৃত্যু হয় তবে অভিভাবক যে পরিমাণ অর্থ জমা করেছিলেন এই প্রকল্পের অধীনে সেই টাকা সুদ সমেত ফেরত পেয়ে যেতে পারে। তাছাড়া সন্তান যদি কোন রকম জটিলতা আক্রান্ত হয় তার ওপরেও সুবিধা রয়েছে।

8. প্রতিমাসে যদি আপনি 1000 টাকা জমা করেন তবে এই মেয়াদ শেষ হবার পর আপনি 5 লক্ষ 92 হাজার টাকা পাবেন, এছাড়াও প্রিমিয়ামের টাকাটা বাড়লে Maturity এর পরিমাণটাও বাড়বে তখন।

9. পরপর 2 মাসের প্রকল্পে টাকা জমা না করলে এই সুকন্যা সমৃদ্ধি যোজনা অ্যাকাউন্ট বন্ধ হয়ে যাবে। এবং পরে কিছু পরিমাণ জরিমানা দিয়ে আবার অ্যাকাউন্ট একটিভ করতে  হবে।

Sarkarichakri.co.in আমরা কোন নিয়োগ সংস্থা নয় সরকারি এবং বেসরকারি চাকরির ওয়েবসাইট গুলিতে যে সমস্ত চাকরির খবরের আপডেট দেয় সেগুলো আপনাদের সামনে তুলে ধরাই আমাদের দায়িত্ব তাই আমাদের বিজ্ঞপ্তি পড়ার পর চাকরিতে এপ্লাই করার আগে অবশ্যই সরকারি চাকরির ওয়েবসাইটে গিয়ে বিজ্ঞপ্তিটি কে যাচাই করে নেবেন যদি কোনো অসুবিধা হয় অবশ্যই আমাদের সঙ্গে কন্টাক করতে পারেন অথবা কমেন্ট বক্সে কমেন্ট করুন

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button