পিএম স্কলারশিপে মাসিক ২৫০০ টাকা পাবে ছাত্র-ছাত্রীরা, কিভাবে আবেদন করবেন?

পিএম স্কলারশিপে মাসিক ২৫০০ টাকা পাবে ছাত্র-ছাত্রীরা: দেশের ছাত্র-ছাত্রীদের আর্থিক সাহায্য করার জন্য কেন্দ্র ও রাজ্য সরকার বিভিন্ন বৃত্তি প্রকল্প নিয়ে হাজির হয়েছে একাধিকবার। এই স্কলারশিপের অধীনে দেশের ছাত্র-ছাত্রীদের আর্থিক সাহায্য করা হয় উচ্চশিক্ষায় সাহায্যের জন্য। এবারেও কেন্দ্র সরকারের তরফ থেকে নতুন একটি দুর্দান্ত স্কীম নিয়ে এল এই প্রকল্পের নাম পিএম স্কলারশিপ স্কীম।

Join Our WhatsApp Group
Join Our Telegram channel
Visit Exam Preparation
Join Our Facebook Group

পিএম স্কলারশিপে মাসিক ২৫০০ টাকা পাবে ছাত্র-ছাত্রীরা

এবার প্রত্যেকটা ছাত্র ছাত্রীদের মাথায় কিছু প্রশ্ন ঘুরপাক খাচ্ছে , সেগুলি হল :- কত টাকা পাওয়া যাবে এই স্কলারশিপের আওতায়? কারা উপভোগ করতে পারবেন এই স্কলারশিপের সুবিধা? কিভাবেই বা করতে হবে আবেদন? ইত্যাদি বিস্তারিত আলোচনা করব আজকের প্রতিবেদনে ।

কত টাকা পাওয়া যাবে এই স্কলার্শিপের মধ্যমে?

দেশের সমস্ত মধ্যবিত্ত ও গরীব পরিবারের সন্তানদের জন্য এই স্কলারশিপটি লঞ্চ করেছে কেন্দ্রীয় সরকার। এই স্কলারশিপের আওতায় ছাত্র ছাত্রীদের উচ্চশিক্ষার জন্য আর্থিক সাহায্য করা হবে। এই প্রকল্পের অধীনে, 50 % স্কলারশিপ ছাত্রীদের জন্য সংরক্ষিত, অর্থাৎ, 150 টি স্কলারশিপের মধ্যে ৭৫ জন ছাত্রীকে নির্বাচিত করা হবে। এই স্কলারশিপ 5 বছরের জন্য বৈধ। শিক্ষার্থীরা পরবর্তী শ্রেণীতে উত্তীর্ণ হতে না পারলে এই স্কলারশিপ রিনিউ করা যাবে না। এই স্কলারশিপের আওতায় ছাত্ররা মাসিক 2500 এবং ছাত্রীরা মাসিক 3000 টাকা পাবেন।

কারা আবেদন করতে পারবেন এই স্কীম এ ?

ইচ্ছুক প্রার্থীদের আবেদন করার জন্য অবশ্যই একজন প্রাক্তন RPF বা RPSF কর্মচারীর পরিবারের সদস্য হতে হবে। ওই কর্মী যদি মারা যান, তবেই এই স্কলারশিপ পাওয়া যাবে। শিক্ষার্থীকে অবশ্যই সরকার স্বীকৃত প্রতিষ্ঠানে পড়াশুনা করতে হবে। ইচ্ছুক প্রার্থীদের অবশ্যই উচ্চ কারিগরি শিক্ষা বা পেশাগত শিক্ষার সাথে যুক্ত থাকতে হবে। প্রার্থীদের অবশ্যই স্বীকৃত অল ইন্ডিয়া কাউন্সিল ফর টেকনিক্যাল এডুকেশন, মেডিকেল কাউন্সিল অফ ইন্ডিয়া বা ইউনিভার্সিটি গ্রান্ট কমিশন বা ন্যাশনাল কাউন্সিল ফর টিচার এডুকেশনের অধীনে একজন রেগুলার পড়ুয়া হতে হবে। আবেদনকারীর দ্বাদশ শ্রেণীতে ৬০% বেশি নম্বর থাকতে হবে।

PM Scholarship Scheme-এ আবেদনের পদ্ধতি ?

আবেদন করার জন্য প্রার্থীদের প্রথমে সংস্থার অফিসিয়াল ওয়েবসাইটে যেতে হবে। এরপর নির্দিষ্ট লিংকে ঢুকে সমস্ত রকম তথ্য দিয়ে নিজের রেজিস্ট্রেশন প্রক্রিয়া সম্পূর্ণ করতে হবে। রেজিস্ট্রেশন করার পর নির্দিষ্ট আবেদনপত্রের লিংকটি খুঁজে সমস্ত তথ্য দিয়ে আবেদনপত্রটি পূরণ করতে হবে। এরপর প্রয়োজনীয় ডকুমেন্টসগুলি স্ক্যান করে অ্যাড করে সাবমিট করলেই কাজ শেষ।

এখানে আবেদনের জন্য প্রয়োজনীয়ও ডকুমেনট্স :-

আবেদনের জন্য যেসমস্ত ডকুমেন্টসগুলি প্রয়োজন সেগুলি হল – IV শ্রেণীর কর্মচারীদের জন্য কর্তৃপক্ষ কর্তৃক জারি করা পরিষেবা শংসাপত্র, ক্যাটাগরি এক,দুই বা তিনজন কর্মচারীর জন্য পপ বা ডিসচার্জ সার্টিফিকেটের কপি, 12 তম শ্রেণীর মার্কশিট ও স্নাতক বা ডিপ্লোমা শংসাপত্র সহ আবেদনকারীর গ্রেড কার্ড।

আরও যোজনার খবরClick Here

Leave a Comment